ক্রিকেট

ইউসুফ পাঠান ক্রিকেটকে বিদায় জানালেন

২০১২ সালে শেষবারের মতো জাতীয় দলের জার্সিতে খেলেছেন। এক বছর ধরে খেলছেন না ঘরোয়া ক্রিকেটও। ক্যারিয়ারের সায়াহ্নে এসে পারফরম্যান্সও সায় দিচ্ছে না ভারত জাতীয় দলের অলরাউন্ডার ইউসুফ পাঠানকে। সবমিলিয়ে ব্যাট-প্যাড তুলে রাখার সিদ্ধান্ত নিলেন তিনি। এক টুইটার পোস্টের মাধ্যমে অবসরের ঘোষণা দেন ইউসুফ।

শুক্রবার (২৬শে ফেব্রুয়ারি) টুইটারে ইউসুফ লিখেন, ‘ক্রিকেট ক্যারিয়ারের ইতি টানার সময় এসেছে। আমি আনুষ্ঠানিকভাবে সবধরনের ক্রিকেট থেকে অবসর ঘোষণা করছি। আমার পরিবার, বন্ধু, অনুরাগী, দল, কোচ এবং গোটা দেশকে ধন্যবাদ জানাতে চাই আমাকে হৃদয় দিয়ে সমর্থন করার জন্য এবং ভালবাসার জন্য।’
পাঠান আরও লেখেন, ‘আমার এখনও মনে পড়ে প্রথমবার দেশের হয়ে মাঠে নামার কথা। আমি সেদিন শুধু জার্সি গায়ে দিইনি একইসঙ্গে আমার পরিবারের, কোচেদের, প্রিয়জনদের, সর্বোপরি গোটা দেশের প্রত্যাশা নিজের কাঁধে তুলে নিয়েছিলাম।’

২০০৭ সালের টি-টোয়েন্টি এবং ২০১১ সালে ভারতের ওয়ানডে বিশ্বকাপ জয়ের অন্যতম তারকা ইউসুফ পাঠান।
ভারতের হয়ে ৫৭ ওয়ানডে এবং ২২ টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলেন তিনি।

এছাড়া একাধিক ফ্র্যাঞ্চাইজির হয়ে আইপিএল ক্যারিয়ারে ১৭৪ ম্যাচ খেলেন ইউসুফ। যার মধ্যে উল্লেখযোগ্য রাজস্থান রয়্যালস। ২০০৮ আইপিএল অভিষেক মৌসুমে রাজস্থানকে খেতাব জিততে বড় অবদান রাখেন পাঠান। আইপিএল ক্যারিয়ারের শেষদিকে কলকাতা নাইট রাইডার্সের হয়েও খেলেছেন ৩৮ বছরের এই ক্রিকেটার।

সম্পর্কিত

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Back to top button